বুধবার, ১লা ডিসেম্বর, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ

মুরাদনগরে নারী ও শিশু নির্যাতন মামলার প্রধান আসামি গ্রেফতার

আজকের কুমিল্লা ডট কম :
আগস্ট ৪, ২০১৭
news-image

মাহবুব আলম আরিফ, মুরাদনগর :

কুমিল্লার মুরাদনগর উপজেলায় নারী ও শিশু নির্যাতন মামলা দায়েরের ১ মাস ৯ দিন পর প্রধান আসামি কে আটক করেছে মুরাদনগর থানা পুলিশ।
আটককৃত আসামি উপজেলার গাইটুলি গ্রামের মৃত ফজলুল হকের ছেলে ফারুক (৩০)।
জানা যায়, বৃহস্পতিবার রাতে এসআই মোহাম্মদ ওমর হায়দারের নেতৃত্বে একদল পুলিশ গোপন সংবাদের ভিত্তিতে উপজেলার পরমতলা গ্রামে অভিযান চালিয়ে গত ২৪ জুন মুরাদনগর থানায় দায়েরকৃত নারী ও শিশু নির্যাতন মামলার প্রধান আসামি ফারুক কে আটক করে থানায় নিয়ে আসে।
মুরাদনগর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) এসএম বদিউজ্জামান বলেন, আটককৃত নারী ও শিশু নির্যাতন মামলার প্রধান আসামিকে শুক্রবার দুপুরে বিজ্ঞ আদালতের মাধ্যমে কুমিল্লা জেল-হাজতে প্রেরণ করা হয়েছে।
প্রেক্ষাপট, গত ১৪ জুন সন্ধায় উপজেলার দারোরা গ্রামের মোঃ আবু তাহেরর মেয়ে মোসাঃ রফিয়া আক্তার (১২) কে মামলার প্রধান আসামী ফারুক জোর পূর্বক সিএনজি যোগে অপহরন করে নিয়ে যায়। এ ঘটনার পর গত ২৪ জুন রফিয়ার বাবা কোন উপায় না দেখে বাদী হয়ে তিন জন কে আসামী করে মুরাদনগর থানায় নারী ও শিশু নির্যাতন আইনে মামলা দায়ের করেন। মামলা দায়েরের ছয় দিন পর রফিয়াকে উদ্ধার করতে সক্ষম হয় মুরাদনগর থানা পুলিশ, তবে সে সময় কোন আসামীকে ধরতে পারেনি। গত ০৬ জুলাই মামলার ২য় আসামী উপজেলার দারোরা গ্রামের মৃত জারু মিয়ার ছেলে বাবুল (৩৮) কে তার নিজ বাড়ী থেকে আটক করে পুলিশ। পরদিন ০৭ জুলাই আসামী বাবুলকে বিজ্ঞ আদালতের মাধ্যমে কুমিল্লা জেল-হাজতে প্রেরণ করা হয়।

আর পড়তে পারেন