শনিবার, ৩১শে জুলাই, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ

বিয়ের দাবিতে প্রেমিকের বাসর ঘরে প্রেমিকা….

আজকের কুমিল্লা ডট কম :
ফেব্রুয়ারি ১৮, ২০১৬

ময়মনসিংহ : বিয়ের দাবিতে প্রেমিকের বাসরঘরে অনশন পালন করেন প্রেমিকা। এতে হতবাক হয়ে যান নববধূ। এমন ঘটনা ঘটেছে গফরগাঁও উপজেলা পরিষদ সংলগ্ন যমুনা বিল্ডিং কোয়াটারে।

বিয়ের দাবিতে প্রেমিকের বাসরঘরে ঢুকে অনশন পালন করেন জান্নাতুল ফেরদৌস তমা নামে এক প্রেমিকা। ঘটনাটি ঘটে মঙ্গলবার রাত ৯টার দিকে। এসময় উৎসুক জনতা প্রেমিকাকে বিভিন্নভাবে শান্ত করার চেষ্টা করলে আত্মহত্যার হুমকি দেন প্রেমিকা তমা।

জানা গেছে, উপজেলার সালটিয়া ইউনিয়নে8343-marrigeর জালেশ্বর গ্রামের মমতাজ উদ্দিনের কলেজ পড়ুয়া মেয়ে জান্নাতুল ফেরদৌস তমার সঙ্গে ফেসবুকে পরিচয় হয় সৌদি প্রবাসী গফরগাঁও ইউনিয়নের ঘাগড়া গ্রামের সহিদ মন্ডলের ছেলে চমক মন্ডলের। সেই সূত্রেই উভয়ের মধ্যে প্রেমের সম্পর্ক গড়ে ওঠে।

প্রেমিকা তমা জানান, চমক মন্ডলের সঙ্গে ৩ বছর ধরে তার প্রেমের সম্পর্ক রয়েছে। এক বছর আগে বিয়ের কথা বলে আংটি ও নাক ফুল পরিয়ে দিয়েছিল চমক মন্ডল। এক বছর আগে সে আমার সর্বনাশ করেছে। এরপর আবার বিদেশ চলে যায় সে। কিছুদিন আগে দেশে এসে অন্য মেয়েকে গোপনে বিয়ে করে। বিয়ের ব্যাপারে আমাকে কিছু জানায়নি সে।

চমক মন্ডল নববধূকে নিয়ে উপজেলা পরিষদে ভগ্নিপতি রাজিবের আসায় ওঠে। খবর পেয়ে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার ড্রাইভার রাজিবের বাসায় আসে তমা। প্রেমিক চমকের সঙ্গে দেখা করে তাকে বিয়ে না করার কারণ জানতে চান তিনি। এসময় ইউএনও’র ড্রাইভার রাজিব তাকে মারধর করে বলে অভিযোগ করেন তমা।

তমার মা মজিদা খাতুন বলেন, আমার মেয়ের জীবন নষ্ট করে অন্য মেয়েকে নিয়ে সংসার করবে এটা হতে পারে না। আমি এর বিচার চাই।

উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার গাড়ির ড্রাইভার রাজিব বলেন, তাদের মধ্যে প্রেম ছিল সত্য, কিন্তু সে কোনো কিছু না বলে আমার বাসায় ভাঙচুর করেছে। আমি তাকে ধাক্কা দিয়ে ঘর থেকে বের করে দিয়েছি। এতে হয়তো আঘাত পেতে পারে।

আর পড়তে পারেন