সোমবার, ১৭ই মে, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ

নাঙ্গলকোটে প্রধান শিক্ষককে মারধর করে চেয়ারম্যানের পায়ে ফেলে ফেসবুকে লাইভ

আজকের কুমিল্লা ডট কম :
এপ্রিল ৩০, ২০২১
news-image

 

মোঃ কামাল হোসেন জনিঃ

কুমিল্লার নাঙ্গলকোট উপজেলার জয়াগ সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক মিয়া মোঃ আল মামুনকে জোড্ডা পূর্ব ইউপির চেয়ারম্যান আনোয়ার হোসেন মিয়াজির অনুসারীরা জোরপূর্বক চেয়ারম্যানের পায়ে ফেলে ক্ষমা চাওয়ায় সর্ব মহলে নিন্দার ঝড় বইছে। এই দৃশ্যটি আবার সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে লাইভ সম্প্রচার করে তার সমর্থকেরা।

মঙ্গলবার রাতে জোড্ডা গ্রামের চেয়ারম্যানের বাড়ির বিল্ডিংয়ের ছাদে এ ঘটনা ঘটে।

এ নিয়ে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে তোলপাড় সৃষ্টি হয়।জানা যায় গত ২২ এপ্রিল জোড্ডা মিয়াজি বাড়ির পুকুরে নিখোঁজের ৩ দিন পর এনামুল হক নামের এক বৃদ্ধের লাশ উদ্ধার করে থানা পুলিশ। ওই দিন দুপুরে শিক্ষক মোঃ আল মামুনের বিশ্ববিদ্যালয় পড়ুয়া ছেলেকে হঠাৎ চড় মারলে এনিয়ে ওই শিক্ষকের সাথে বাকবিতন্ডায় জড়িয়ে পরে। এতে ক্ষুব্ধ হয়ে ২৩ এপ্রিল রাতে ওই শিক্ষকের ভিটি জমি থেকে ভ্যাকু মেশিন বসিয়ে ট্রাক্টর লাগিয়ে মাটি বিক্রি করেন। খবর পেয়ে গভীর রাতে থানা পুলিশ গিয়ে মাটি কাটা বন্ধ করে দেন।

গত মঙ্গলবার রাতে ২ শতাধিক লোকজন নিয়ে চেয়ারম্যানের বাড়ির বিল্ডিংয়ের ছাদে বসে সেখানে ওই শিক্ষককে ধরে এনে উপজেলা মুক্তিযোদ্ধা সন্তান কমান্ডের সভাপতি ও বাংলাদেশ রেলওেয়ের ড্যামু কমিউটার ট্রেনের গার্ড ওমর ফারুক লিটন ওই শিক্ষক ও তার ছেলেকে ধাক্কা দিয়ে ইউপি চেয়ারম্যানের পায়ে ফেলে ক্ষমা চাওয়ায়।আর এঘটনাটি md monir নামের ফেসবুক আইডিসহ কয়েকটি ফেসবুক আইডিতে লাইভ সম্প্রচার করে।

অভিযুক্ত আনোয়ার হোসেন মিয়াজির মোবাইলে বারবার ফোন দিলেও রিসিভ না করায় বক্তব্য নেওয়া সম্ভব হয়নি।

নাঙ্গলকোট থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোঃ বখতিয়ার উদ্দিন চৌধুরী বলেন, অভিযোগ পেলে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা লামইয়া সাইফুল বলেন, ঘটনাটি খুবই দুঃখজনক কেউ অভিযোগ করলে জড়িতদের বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

আর পড়তে পারেন