সোমবার, ৮ই মার্চ, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ

দেবিদ্বার পৌর এলাকাজুড়ে খোলা ডাস্টবিন, ভোগান্তিতে পৌরবাসি

আজকের কুমিল্লা ডট কম :
জুন ৭, ২০১৭
news-image

মোঃ জামাল উদ্দিন দুলালঃ
কুমিল্লা জেলার দেবিদ্বার পৌরসভা যেন ময়লা’র বাগার (খোলা ডাস্টবিন) নেই কোনো এর প্রতিকার। আর নানান রোগে আক্রান্ত হচ্ছে সমাজের নানান বয়সের মানুষ। এটি দেখার যেন কেউ নেই।
এদিকে দেবিদ্বার পৌরসভা ২০০২ সালের ৪ই সেপ্টেম্বর গ্যাজেট বিজ্ঞপ্তি প্রকাশের পর উপজেলার তিনটি ইউনিয়ন নিয়ে একই বছরের ১৩ই সেপ্টেম্বর এই পৌরসভার কার্যক্রম শুরু হলেও আজ পযর্ন্ত স্থায়ী ভাবে ময়লা ফেলানো’র নিজস্ব কিংবা নির্দিষ্ট জায়গা না থাকার ফলে এই ময়লা’র বাগার (খোলা ডাস্টবিন)। পৌরসভার কুমিল্লা-সিলেট মহাসড়কে’র পাশে দেবিদ্বার মহিলা বিশ্ববিদ্যালয় কলেজ এর সামনে, আজগর আলী বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়’র সামনে,শান্তি রোড, বারেরা , ইকরা নগরীসহ অনেক জায়গায়, অবস্থিত বৃহৎ আকারের সেই্ খোলা ডাস্টবিন। আর সেই খোলা ডাস্টবিনের পাশ দিয়ে চলাচল করে সাধারন জনগন। শুধু তাই নয় মহাসড়ক দিয়ে দিনে হাজার হাজার যাত্রী পরিবহন এর মাধ্যমে যাতায়াত করে। ময়লা পচাঁ আর্বজনার দুর্গন্ধ সহ্য করার মত নয় । নাকে কাপড় দিয়ে একহাতে গাড়ি চালনা করেন অনেক চালক, যার ফলে পড়তে হয় দুর্ঘটনায়। আর দুগর্ন্ধে নানান জটিল রোগে আক্রান্ত হচ্ছেন পথচারীরা। যার ফলে জীবনের আতংকে ভূগছেন সাধারন জনগন ।
নাক ডেকে গাড়ি চালানো বিষয়ে জানতে চাইলে নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক এক চালক বলেন, ভাই আমাদের গাড়িতে ত্ োএসি নাই , খোলা মেলাভাবেই গাড়ি চালাতে হয় আমাদের । আর যারা এই সমস্যার সমাধান করবে তাদের গাড়িতো এসি চালানো থাকে তাই বাহিরের দুর্গন্ধ তাদের নাকে পৌছায় না । দুর্গন্ধে বমি চলে আসে, তা সহ্য করা যায় না। বাধ্য হয়ে গামছা দিয়ে নাক ঢেকে রাখতে হয় ।
এব্যাপারে দেবিদ্বার পৌর প্রশাসক ও উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মোঃ সাইফুল ইসলাম’র নিকট জানতে চাইলে তিনি “দৈনিক আজকের কুমিল্লা” কে বলেন, পৌরসভার নির্বাচন দ্রুত প্রয়োজন, তবে আমি চেষ্টা করতেছি ময়লা ফেলানোর জন্য কোথাও একটা নির্দিষ্ট স্থান করার জন্য।

আর পড়তে পারেন