শনিবার, ১৭ই এপ্রিল, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ

চিকিৎসক সংকটে দেবিদ্বারে স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে স্বাস্থ্য সেবা ব্যাহত

আজকের কুমিল্লা ডট কম :
আগস্ট ১৮, ২০১৮
news-image

 

মোঃ জামাল উদ্দিন দুলাল :

কুমিল্লা জেলার দেবিদ্বার উপজেলায় প্রায় সাড়ে পাঁচ লক্ষাধিক জনসংখ্যার চিকিৎসা সেবার জন্য সরকারি স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সটি ৩১ শয্যা থেকে ৫০ শয্যায় উন্নীত হলেও মঞ্জুরীকৃত পদে সংখ্যাক ডাক্তার সংকট থাকায় আধুনিক সেবা থেকে রোগীরা বঞ্চিত। এতে স্বাস্থ্য সেবা ব্যাহত হচ্ছে।

উপজেলার বিভিন্ন এলাকা ও পাশর্^বতী উপজেলা থেকে প্রতিদিন দূর থেকে রোগীরা চিকিৎসা সেবা নিতে এসে দূর্ভোগ পোহাতে হচ্ছে।

স্বাস্থ্যকমপ্লেক্স সূত্রে জানা যায়, উপজেলা ওই কমপ্লেক্সটি ৩১ শয্যা থেকে ৫০ শয্যায় উন্নীত করে ২০০৬ সালের ১৮ জুন উদ্বোধন করা হয় । আর স্বাস্থ্য সেবার জন্য ২২ টি মঞ্জুরীকৃত ডাক্তারের পদ থাকলেও বর্তমানে ১৩টি কর্মরত পদে ডাক্তার রয়েছেন। তবে তাদের মধ্যে প্রেষনে ৩ জন ও পবিত্র হজ্জ্ব পালনে ১ জন রয়েছেন।

অপরদিকে শূন্য পদে রয়েছেন ৯জন ডাক্তার। যে সকল পদে ডাক্তার শূন্য সেই পদটি হলো: জুনিয়র কনসালটেন্ট (চর্ম ও যৌন) ১টি, জুনিয়র কনসালটেন্ট (এনেসিথেঃ) ১টি, মেডিকেল অফিসার (প্যাথলজি) ১টি, ইনডোর মেডিকেল অফিসার ১টি, মেডিকেল অফিসার (এ্যানেসথেটিস্ট)১টি, মেডিকেল অফিসার ২টি, সহকারি ডেন্টাল সার্জন ১টি, মেডিকেল অফিসার ইউনানী ১টি। এসব পদে ডাক্তার শূন্য থাকায় সেবা নিতে এসে রোগীরা মুখ বুজে  সহ্য করে প্রাইভেট হাসপাতালে চিকিৎসা সেবা নিতে চলে যান। গরীব রোগীরা অর্থ সংকট থাকায় ফলে চিকিৎসা না দিয়ে বাড়িতে চলে যেতে হয়।

এ ব্যাপারে উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডাঃ আহাম্মদ কবীর ‘‘ দৈনিক আজকের কুমিল্লা ’’ প্রতিনিধি’কে জানান, ডাক্তার সংকট এর সমস্যাগুলো উধ্বর্তন কর্তৃপক্ষকে বারবার লিখিত আবেদন করেও ডাক্তারদের শূন্য পদ পূরণ করা সম্ভব হয়নি । উপজেলার স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সটিতে প্রতিদিন আউটডোরে প্রায় পাচঁশত থেকে সাড়ে পাচঁশত এবং ইনডোরে ৫০ থেকে ৬০জন রোগীর সেবা দেওয়া হয়।

কোন কোন সময় সাবসেন্টার থেকে ডাক্তার এনে রোগীদের সেবা প্রদান করা হয়। তবে রোগীদের সেবার মান উন্নত করার জন্য সার্বিক চেষ্টা করে যাচ্ছি।

 

আর পড়তে পারেন