সোমবার, ২৫শে অক্টোবর, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ

দেবিদ্বারে গৃহবধু হত্যার ঘটনায় ঘাতক স্বামী আটক

আজকের কুমিল্লা ডট কম :
মার্চ ২০, ২০১৭
news-image

 

স্টাফ রিপোর্টারঃ

কুমিল্লার দেবিদ্বার উপজেলায় ৫ সন্তানের জননী হাজেরা বেগমকে (৪২) শ্বাসরুদ্ধ করে হত্যার ঘটনায় জড়িত নিহতের স্বামী শাহ আলমকে গ্রেফতার করেছে থানা পুলিশ।

সোমবার (২০ মার্চ) ভোররাতে তাকে নিজ বাড়ি থেকে আটক করা হয়।

গ্রেফতার হওয়া শাহ আলম জেলার দেবিদ্বার পৌর এলাকার দক্ষিণ ভিংলাবাড়ি এলাকার বাসিন্দা।

দেবিদ্বার থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মিজানুর রহমান জানান, শাহ আলম তার স্ত্রীকে হত্যা করেছে বলে অকপটে দোষ স্বীকার করেছে। তাকে আদালতে উপস্থাপন করা হলে সে একাই নিজ স্ত্রীকে নিজ গৃহে গলা টিপে হত্যার দায় স্বীকার করেছে বলে ১৬৪ ধারায় স্বীকারোক্তি প্রদান করেছে।

আদালতে জবানবন্দিতে শাহ আলম জানায়, প্রায় ৩০ বৎসর পূর্বে শাহ আলম এর সাথে হাজেরার বিবাহ হয়। তাদের সংসারে তিন বিবাহিত কন্যা সন্তান এবং দুই পুত্র সন্তান আছে। তার স্ত্রী হাজেরা বিভিন্ন সময়ে কথায় কথায় তাকে গালাগালি ও মারধর করত। তার ভাইদের ক্ষমতায় পরিবারের লোকজনদের উপর অত্যাচার করত। ১৮ মার্চ রাত ৮টার দিকে সে বাসায় ভাত খেতে এলে তাকে ঠান্ডা ভাত, ভর্তা ও একটু ঝোল দিয়ে ভাত খেতে দেয়। ভালো কিছু কেন রান্না করা হয় নাই জিজ্ঞাসা করায় হাজেরা তাকে গালাগালি করে এবং ঝাড়– দিয়ে আঘাত করে। এরপর সে না খেয়ে খামারে চলে যায়। সেখানে গিয়ে চিন্তা করে, হাজেরার জন্য সে বাবা-ভাই, পিতৃ সম্পত্তি, টাকা-পয়সাসহ সব হারিয়েছে। তখনই সে হাজেরাকে হত্যা করার সিদ্ধান্ত নেয়। রাত ১১টার দিকে খামার থেকে পুনরায় ঘরে ফিরে দরজা নক করলে হাজেরা দরজা খুলে দিলে সে হাজেরার সাথে বিছানায় গিয়ে শুয়ে ঘুমের ভান করে থাকে। হাজেরা ঘুমিয়ে পড়লে তার বুকের উপর উঠে বসে গলা চিপে ধরলে হাজেরা কিছুক্ষন ঝাপটা ঝাপটি করে। একটু পর হাজেরার দেহ নিথর হয়ে যায়। এরপর হাজেরার লাশ নিয়ে ঘরের পিছনে ফেলে রেখে পুনরায় খামারে চলে যায়। সকালে ছেলে তাজুল ইসলাম মায়ের লাশের সংবাদ দিলে সে এসে লোক দেখানো কান্নাকাটি করে এবং রাতে জানাজায় অংশ নেয়। এরপরই পুলিশ তাকে আটক করে জিজ্ঞাসাবাদ করলে একপর্যায়ে সে সব খুলে বলে।

১৯ মার্চ ভোররাতে জেলার দেবিদ্বার পৌর এলাকার দক্ষিণ ভিংলাবাড়ি এলাকায় ৫ সন্তানের জননী হাজেরা বেগমকে (৪২) শ্বাসরুদ্ধ করে হত্যা করে নিহতের স্বামী শাহ আলম। নিহত হাজেরা বেগম জেলার দেবিদ্বার পৌর এলাকার দক্ষিণ ভিংলাবাড়ির পোলট্রি ফার্মের ব্যবসায়ী শাহ আলমের স্ত্রী।

আর পড়তে পারেন