সোমবার, ২৫শে অক্টোবর, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ

চৌদ্দগ্রামে বিয়ের প্রলোভনে তরুণীকে ধর্ষণ,বিয়ের দাবিতে অনশন করায় নির্যাতন

আজকের কুমিল্লা ডট কম :
জুলাই ১৩, ২০১৯
news-image

 

মোঃ সফিউল আলম ঃ
কুমিল্লার চৌদ্দগ্রামে বিয়ের প্রলোভন দেখিয়ে তরুণীকে একাধিকবার ধর্ষনের অভিযোগ উঠেছে, ওই তরুণী বিয়ের দাবি নিয়া অনশন করিলে নির্যাতনের শিকার হয় বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে।

মামলা সূত্র জানায়, চৌদ্দগ্রাম উপজেলার শুভপুর ইউনিয়ন তুলাপুষ্কুরুনী গ্রামের মোঃ আমির হোসেন এর মেয়ে আয়েশা আক্তার এর সাথে একই বাড়ির মৃত মোঃ আতর ইসলামের ছেলে মোঃ হাসানের সাথে গত এক বছর ধরে প্রেমের সম্পর্ক গড়ে উঠে। হাসান বিয়ের আশ্বাস দিয়ে একাধিকবার ধর্ষণ করে  ওই তরুণীকে।

বিষয়টি আয়েশার পরিবারে জানা জানি হলে  আয়েশা হাসানকে বিয়ের প্রস্তাব দেয়। কিন্তু বিয়ে করা হাসানের পক্ষে সম্ভব হবে বলে সেই জানিয়ে দেয়।

তরুনী আয়েশা তার অধিকার আদায়ে বিয়ের দাবি নিয়া প্রেমিক হাসানের বাড়িতে অনশন করে, খবর পেয়ে হাসানের বড় ভাই মোঃ রিপন ও মোঃ জামাল বাড়িতে এসে আয়েশাকে জোরপূর্বক বের করে দেয়। আয়েশা তাদের বাড়িতে আবার অবস্থান করিলে, তখন অমানুষিক নির্যাতন শুরু করে হাসানের পরিবার।  খবর পেয়ে স্থানীয় লোকজন আয়েশাকে উদ্ধার করে কুমিল্লা জেনারেল হাসতালে ভর্তি করেন।

গত ৭ জুলাই তরুণী আয়েশা আক্তার বাদি হয়ে কুমিল্লা নারী ও শিশু নির্যাতন ট্রাইবুনাল  ১ নং আদালতে এ মোঃ হাসান, মোঃ রিপন ও মোঃ জামালকে আসামী করে একটি মামলা দায়ের করেন।

আর পড়তে পারেন