মঙ্গলবার, ৩রা আগস্ট, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ

চান্দিনায় ৭ পরিবারের ১৩ ঘরে হামলা-ভাংচুর; আটক ২

আজকের কুমিল্লা ডট কম :
মে ৩১, ২০১৭
news-image

 

স্টাফ রিপোর্টারঃ
সারা দিনে রোজা রেখে সন্ধ্যায় পবিত্র ইফতার নিয়ে পরিবারের সাথে একত্রে বসেছিলেন ফাতেমা বেগম (৭০)। বিধিবাম! হঠাৎ শুরু হয় বাড়ি-ঘর ভাংচর। মুহুর্তের মধ্যেই ঘর-দরজা ভেঙ্গে একাকার করে দেয় সন্ত্রাসী বাহিনী। সামনের ইফতার সামগ্রী কেড়ে নিয়ে ছুড়ে ফেলে দেয় পাষন্ডের দল।
লাঠির আঘাতে নিজের হাঁটু চেপে ধরে অশ্রুসিক্ত নয়নে সত্তোর্ধ্ব ফাতেমা বেগম সোমবার (২৯ মে) সন্ধ্যায় কুমিল্লার পানিপাড়া গ্রামে সন্ত্রাসী হামলার ঘটনায় বর্ণনা করেন।


চান্দিনা উপজেলার ৯নং মাইজখার ইউনিয়নে ইউপি আওয়ামীলীগ সভাপতি জামাল উদ্দিন ও ইউপি চেয়ারম্যান শাহ্ সেলিম প্রধান এর গ্রুপের মধ্যে আধিপত্য বিস্তার নিয়ে সংঘর্ষ দীর্ঘদিনের। কিন্তু পবিত্র রমজান মাসের ইফতারের সময়ও থেমে নেই তাদের নৈরাজ্য। দুই গ্রুপের দ্বন্দে¦ প্রতিদিনই ওই ইউনিয়নে বিশেষ করে পানিপাড়া গ্রামে সংঘর্ষ অব্যাহত রয়েছে। যার শিকার হচ্ছে এলাকার সাধারণ মানুষ।


সোমবার বিকেলে জামাল উদ্দিন এর ভাই কামাল উদ্দিন পথিমধ্যে সেলিম প্রধান এর সমর্থক গিয়াস উদ্দিনকে মারধর করে আহত করে। ওই ঘটনার জের ধরে সন্ধ্যায় ৩৫-৪০ জনের স্ব-সস্ত্র সন্ত্রাসী বাহিনী প্রথমে জামাল উদ্দিন এর সমর্থিত ফরিদ উদ্দিন, হান্নান মিয়া ও মতিন মিয়ার ৭ পরিবারের ১২টি ঘরের আসবাবপত্র সহ ছয়টি রঙিন টিভি, সাতটি রেফ্রিজরেটর পাচটি ষ্টিলের আলমারী চারটি ড্রেসিং টেবিল কয়েকটি শোকেস ডায়নিং টেবিল ও চেয়ার সহ টিনের ঘর দরজা জানালা ভাংচুর এবং টিনের বেড়া রাম দা দিয়ে এলোপাথারী কুপিয়ে সন্ত্রাসী কর্মকান্ড চালায়।


আহত ফাতেমা বেগম ও বিলকিস জানান, প্রথমে ফরিদ উদ্দিন এর বাড়ির দরজা জানালা ও ঘরের আসবাবপত্র ভংচুর করে ষ্টিলের আলমারীসহ অনেক আসবাসপত্র ভাংচুর করে স্বর্ণাঅলংকার ও মাছ বিক্রির টাকা লুটে নেয়। পরবর্তীতে এক-এক করে আরও ৬টি পরিবারের সকল ঘর-দরজা-আসবাবপত্র ভেঙ্গে লুটতরাজ চালায়। তাদের রোষাণল থেকে রক্ষা পায়নি বাড়ির বৌ-ঝি এমনকি শিশুরা পর্যন্ত। তারা যাকেই সামনে পেয়েছে তাদের মারধর করে তাদের কান গলার গহনা ছিনিয়ে নিয়েছে এবং ষ্টিলের আলমারীতে রক্ষিত হালিমা ও দেলোয়ারার ১৫ ভরি গহনা জমি জমার দলীল পত্র ইন্সিওরেন্সের এর কাগজপত্র সহ নগদ চার লক্ষ টাকা লুটে নেয়। তাদের এই সব কর্মকান্ড দেখে বাড়ির কতিপয় পুরুষ কোন রকমে পালিয়ে প্রাণে রক্ষা পেয়েছেন।
প্রত্যক্ষদর্শী ও আহতের স্বজনদের সূত্রে জানাযায়, সোমবার ইফতারীর সময় পানিপাড়া গ্রামের ফরিদ, হান্নান, সুমন, মতিন ও দিলুর বাড়িতে সেলিম গ্রুপের দুর্বৃত্তরা রাম দা, ছেনি নিয়ে তাদের বাড়িতে অতর্কিত হামলা চালায়।
এব্যাপারে চান্দিনা থানার অফিসার ইন চার্জ মো. নাছির উদ্দিন মৃধা জানান, ‘হামলার বিষয়ে শুনেই ঘটনাস্থলে পুলিশ পাঠিয়েছি, এই পর্যন্ত দুই জনকে আটক করা হয়েছে; আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।’

আর পড়তে পারেন