সোমবার, ১২ই এপ্রিল, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ

চাঁদপুরে চাঁদার টাকা না দেয়ায় মুক্তিযোদ্ধার সন্তানের উপর সন্ত্রাসী হামলা

আজকের কুমিল্লা ডট কম :
এপ্রিল ১, ২০১৯
news-image

 

ষ্টাফ রিপোর্টার :
চাঁদপুর শহরের বঙ্গবন্ধু সড়কে প্রতিপক্ষের সন্ত্রাসী হামলার শিকার হয়ে গুরুত্ব আহত হয়ে ২৫০ শয্যা বিশিষ্ট চাঁদপুর সরকারী জেনারেল হাসপাতালে ভর্তি আছেন চাঁদপুর শহর যুবলীগের সাবেক আহ্বায়ক কমিটির সদস্য ও স্পেন প্রবাসী আব্দুর রহমান খান বাবলু।

ঘটনার বিবরনে জানা যায়, চাঁদপুর বক্ষব্যাধি হাসপাতাল সংলগ্ন সোনালী সিড়ি এলাকার খান মহল ভিলার বাসিন্দা মুক্তিযোদ্ধা হাজী মোঃ আক্তার হোসেন খান এর বড় ছেলে আব্দুর রহমান খান বাবলু চাঁদপুর পৌরসভার ১২নং ওয়ার্ড বিষ্ণুদী আইটার স্টেডিয়াম এর পূর্ব পাশে ১৭ বছর পূর্বে খরিদ সূত্রে জায়গা ক্রয় করেন। তিনি গত দুই বছর আগে ঐ জমিতে বিল্ডিং এর কাজ শুরু করেন এবং কাজ চলাকালীন সময় গত জানুয়ারী মাসে চাঁদপুর চেয়ারম্যানঘাট এলাকার জর্জকোর্ট সংলগ্ন মিজি বাড়ির মৃত আব্দুল কাদির মিজির দুই পুত্র মোঃ হাবিব মিজি (হাবু) ও মোঃ হাসিম মিজি তার কাছ থেকে ২০ লক্ষ টাকা চাঁদা দাবী করেন। এ নিয়ে চাঁদপুর পৌরসভায় লিখিত অভিযোগ করলে পৌর মেয়র আলহাজ্ব নাছির উদ্দিন আহমেদ ও ১২নং ওয়ার্ড কমিশনার মোঃ হাবিব দর্জি দু’পক্ষের উপস্থিতিতে সমস্যাটি মিমাংসা করে দেন।

শুক্রবার (২৯ মার্চ) সন্ধ্যায় প্রতিপক্ষকে চাঁদা না দেয়ায় আব্দুর রহমান খান বাবলুর নির্মানাধীণ ভবনের মাটির নিচের পানির পাইপ ভেঙ্গে ফেলেন। তিনি তাৎক্ষনিক ১২নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর মোঃ হাবিব দর্জি কে বিষয়টি অবহিত করলে তিনি তার অফিসে যেতে বলেন। এরপর তিনি কাউন্সিলর হাবিব দর্জির অফিসে যাওয়ার পথে বঙ্গবন্ধু সড়কে প্রতিপক্ষরা দেশীয় ধারালো অস্ত্র দিয়ে অতর্কিত হামলা চালায়। এসময় প্রত্যক্ষদর্শীরা দ্রুত উদ্ধার করে ২৫০ শয্যা বিশিষ্ট চাঁদপুর সরকারী জেনারেল হাসপাতালে ভতি করান। পরবর্তীতে রাত ৯টায় সন্ত্রাসী হামলার শিকার আব্দুর রহমান খান বাবলুর পিতা মুক্তিযোদ্ধা হাজী মোঃ আক্তার হোসেন খান বাদী হয়ে চাঁদপুর মডেল থানায় ৬জনকে অভিযুক্ত করে মামলা দায়ের করেন। অভিযুক্তরা হচ্ছেন- চাঁদপুর চেয়ারম্যানঘাট এলাকার জর্জকোর্ট সংলগ্ন মিজি বাড়ির মৃত আব্দুল কাদির মিজির পুত্র মোঃ হাবিব মিজি (হাবু), মোঃ হাসিম মিজি, জাকির মিজি, মনির মিজি এবং হাবিব মিজির ছেলে রিয়াজ মিজি ও শিহাব মিজি।
মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা এসআই মোঃ হাবিব এর সাথে যোগাযোগ করা হলে তিনি বলেন, থানায় অভিযোগের প্রেক্ষিতে হাসপাতালে গিয়ে হামলার শিকার আব্দুর রহমান বাবলুকে আহত অবস্থায় দেখতে পাই। আহত ব্যাক্তির শরীরের বিভিন্ন স্থানে ক্ষত বিক্ষত রয়েছে।

 

আর পড়তে পারেন