রবিবার, ১৬ই মে, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ

কুমিল্লায় ১৫ বছর পর পরিবারের খোঁজ পেলেন হারিয়ে যাওয়া যুবতী

আজকের কুমিল্লা ডট কম :
এপ্রিল ৯, ২০২১
news-image

 

মোঃ বশির আহমেদ, নাঙ্গলকোট:

১৫ বছর থেকে নিখোঁজ শারমিন তার ঠিকানা খুঁজে পেয়েছে। কুমিল্লার নাঙ্গলকোট উপজেলা তার বাড়ি। কিন্তু কোন গ্রাম, পোস্ট অফিস বা কোন ইউনিয়নের বাসিন্দা এসব বিষয়ে তার স্মরণে আসছিল না। শারমিন আরজে কিবরিয়ার মাধ্যমে ইউটিউবে একটি ভিডিও সাক্ষাৎকার দেয়।সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকেও এ সংক্রান্ত খবরটি ব্যাপকহারে পোস্ট করে নাঙ্গলকোট উপজেলার লোকজন। ফলে তার পরিচয়টি ৮ ঘন্টার মাঝেই পাওয়া যায়। আজ শুক্রবারে সে পিত্রালয়ে পৌঁছাবে বলে জানা গেছে।

হারিয়ে যাওয়া শারমিনের বাড়ি পেরিয়া ইউনিয়নের গ্রাম রুদ্রচুমা।

এর আগে ছাপানো এসংক্রান্ত খবরটি পুনরায় হুবহু নিচে তুলে ধরা হলো-

“শারমিন নামে ১৮ থেকে ২০ বছর বয়সের এই মেয়েটি তার পিতা-মাতার কাছে ফিরে যেতে চায়। মেয়েটি শুধুমাত্র তার বাড়ি নাঙ্গলকোট উপজেলা বলে জানিয়েছে। গ্রাম, পোস্ট অফিস অথবা ইউনিয়নের নাম তার মনে নেই। সে জানিয়েছে তার বাবার নাম আব্দুস সালাম ও মায়ের নাম আমেনা বেগম। তারা দুই ভাই ও দুই বোন। দুই ভাইয়ের নাম হচ্ছে ফরহাদ ও রাসেল। ওর বড় বোনের নাম সালমা আক্তার আর ওর নিজের নাম হচ্ছে শারমিন আক্তার।

“আপন ঠিকানা” নামে ইউটিউব চ্যানেল থেকে আজ তার সাক্ষাৎকার প্রচারিত হয়েছে। সে তার নিজ ঠিকানা বাবা-মায়ের কাছে যেতে চায়। কেউ যদি তার সন্ধান দিতে পারেন অথবা ঠিকানা মিলে যায় তাহলে যোগাযোগ করার জন্য অনুরোধ করা হলো।

সে জানিয়েছে যখন তার বয়স ৫/৬ বছর তখন তাকে তার চাচা ঢাকায় একটি বাসায় কাজের জন্য দিয়ে যায়। তাদের কাছে অত্যাচারিত হয়ে সে পাশের বাসার কাজের মেয়ের সহযোগিতায় অন্যত্র কাজ নেয়। এভাবে এসে হারিয়ে যায়।

নিজের ঠিকানা ভুলে যাওয়ায় সে এক বাসা থেকে আরেক বাসায় কাজ করতে থাকে। সে তার পিতা-মাতার ঠিকানা ফিরে যেতে চায় বলে জানিয়েছে। কিন্তু ঠিকানা মনে না থাকায় বিপাকে পড়েছে।

আর পড়তে পারেন