মঙ্গলবার, ৩রা আগস্ট, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ

কুমিল্লায় চাঞ্চল্যকর শিশু শিহাব হত্যা মামলায় দুই শিশুর ১০ বছরের কারাদন্ড

আজকের কুমিল্লা ডট কম :
সেপ্টেম্বর ২০, ২০১৭
news-image

 

আশিকুর রহমান আশিকঃ

কুমিল্লায় চাঞ্চল্যকর শিশু শিহাব হত্যা মামলায় দুই শিশুর দশ বছর করে কারাদন্ড দিয়েছে শিশু আদালত। সোববার বিকেলে কুমিল্লা শিশু আদালতের বিচারক বেগম জেবুন্নেছা এ রায় দেন।

দন্ডপ্রাপ্ত শিশুরা হলো, ফয়সল আহমেদ ও রবিউল হাসান হৃদয়। নিহতের চাচাতো ভাই সাইফুর রহমান রানা জানান, আমড়াতলী ইউনিয়নের রতœবতী গ্রামের নজরুল ইসলামের ছেলে নিহত রাশেদুল ইসলাম শিহাব (৯)। ২০১৩ সালের ২৭ জানুয়ারি পাশের এক বাড়িতে পিকনিক করতে গিয়ে সে আর বাসায় ফিরে আসেনি।

পরে তাকে না পেয়ে তার অভিভাবকরা স্থানীয় কুমিল্লার পত্রিকায় নিখোঁজ সংবাদের বিজ্ঞাপন দেন। পরে অপহরণকারীরা শিহাবের বাবাকে মোবাইল ফোনে অপহরণের কথা উল্লেখ করে মুক্তিপণ বাবদ ৫০ লাখ টাকা দাবি করে। পরবর্তীতে অপহরনকারীরা এসএমএস পাঠিয়ে আরো পাঁচ লাখ টাকা মুক্তিপণ দাবি করে। এমনকি তারা অপহরণের সত্যতা নিশ্চিত করতে শিহাবের জামা কাপড়ের ছবিও পাঠায়।অপহরণকারীদের মোবাইল ফোন ট্রেকিং করে স্থানীয় চার স্কুলছাত্রকে আটক করে পুলিশ।পুলিশের জিজ্ঞাসাবাদে তারা জানায়, অপহরণের রাতেই শিহাবকে জবাই করে হত্যা করে বাথরুমের ট্যাঙ্কিতে ফেলে দেওয়া হয়। এ ঘটনায় শিহাবের বাবা নজরুল ইসলাম বাদী হয়ে রবিন, নয়ন, ফয়সল, হৃদয়সহ চারজনকে আসামি করে ২০১৩ সালের ৪ ফেব্রুয়ারি কোতয়ালী মডেল থানায় মামলা দায়ের করেন। মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা ওই বছরের ৪ আসামির মধ্যে রবিন ও নয়নের বিরুদ্ধে নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আদালতে এবং ফয়সল ও হৃদয় কিশোর অপরাধী হওয়ায় তাদের বিরুদ্ধে কিশোর আদালতে পৃথক চার্জশিট দাখিল করেন। মামলায় দীর্ঘ শুনানী শেষে গেলো বছর ১৬ নভেম্বর আসামী কুদ্দুছুর রহমান রবিন ও মাহে আলম নয়নকে ফাঁসির দন্ডাদেশ প্রদান করে। এছাড়া এ মামলার অপর দুই আসামি শিশু হওয়ায় তাদের বিচার শিশু আদালতে বিচারাধীন অবস্থায় আজ তাদের দুজনকে দশ বছর করে কারাদন্ড প্রদান করেন।

আর পড়তে পারেন