রবিবার, ১৯শে সেপ্টেম্বর, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ

কুমিল্লার নিমসারে ব্যবসায়ীদের সাথে ইজারাদারের সংঘর্ষ, আহত-৩

আজকের কুমিল্লা ডট কম :
এপ্রিল ১৫, ২০১৯
news-image

 

কুমিল্লা প্রতিনিধি :

কুমিল্লার বৃহত্তমত নিমসার সবজী বাজারের ইজারা আদায় নিয়ে ব্যবাসয়ীদের সাথে বাজার ইজারাদার কর্তৃপক্ষের দফায়-দফায় সংঘর্ষ হয়েছে। ১ বৈশাখ ভোর থেকে বাজার এলাকায় এ সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে। এতে ব্যবসায়ী ও ইজারাদার উভয় পক্ষের ৩ জন আহত হয়েছে। এদিকে অতিরিক্ত ইজারা আদায় বন্ধে ১ বৈশাখ বিকেলে ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়কের নিমসার বাজার এলাকায় মানববন্ধন, বিক্ষোভ ও প্রতিবাদ সভা করে ব্যবসায়ীরা।

জানা যায়, জেলার বুড়িচং উপজেলার মোকাম ইউনিয়নের নিমসার দৈনিক বাজার ১৪২৬ বাংলা সনের জন্য ২ কোটি ৭৬ লাখ ৩০ হাজার টাকায় বরাদ্ধ পায় মোঃ মামুন নামে এক ইজারাদার। মামুন ১ বৈশাখ ভোর রাত থেকে বাজারের দায়িত্ব বুঝে নিয়ে বাজারের ব্যবসায়ীদের কাছ থেকে ইজারা আদায় আরাম্ভ করে।

সকালে বাজারের দক্ষিন-পশ্চিম পাশে অবস্থিত মাছ বাজারের ইজারার জন্য যায় মামুনের লোকজন। এসময় ওই বাজারের ব্যবসায়ী ও বাজারের জায়গার মালিক আবদুল কাদের জিলানীর লোকজন ইজারা দিতে অপরাগত প্রকাশ করে।

এতে ব্যবসায়ী ও ইজারাদারের লোকজনের মধ্যে হাতাহাতির ঘটনা ঘটে। খবর পেয়ে বাজারের ইজারাদার মামুন ও মাছ বাজারের জায়গার মালিক জিলানী ঘটনাস্থলে আসে। এসময় উভয়ের মধ্যে কাথা কাটাকাটির এক পর্যায়ে সংঘর্ষ আরাম্ভ হয়। উভয় গ্রুপের লোকজন এসময় অস্ত্র উচিয়ে গুলি ছোড়তে থাকে।

খবর পেয়ে দেবপুর ফাঁড়ীর পুলিশ, বুড়িচং থানা পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌছে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রনের চেষ্ঠা চালায়। পরে কুমিল্লা থেকে এক প্লাটুন অতিরিক্ত পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌছে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রনে আনতে ৬ রাউন্ড ফাঁকা গুলি চালায়। সংঘর্ষে এসময় উভয় গ্রুপের ৩জন আহত হয়।

বাজারের ইজারাদার মোঃ মামুন জানান, সকালে আমার লোকজন মাছ ও তোয়া বাজারের ইজারার টাকা আদায়ের জন্য যায়, এসময় ছাত্রলীগের সভাপতি জিলানীসহ তাঁর লোকজন ইজারাদারদের উপর হামলা চালায়। হামলাকারীরা এসময় মোশারফ হোসেন মিল্টু (৪০) নামে এক ইজারাদারকে কুপিয়ে আহত করে। এ ঘটনায় থানায় মামলা দায়েরের প্রস্তুতি চলছে।

এ বিষয়ে ছাত্রলীগের সভাপতি আবদুল কাদের জিলানী জানান, সকালে বাজারের ইজারাদারের লোকজন তাঁর পৈত্রিক সম্পত্তির উপর নির্মিত মাছ ও তোয়া বাজারের ইজারার জন্য আসে। এসময় বাজারের ব্যবসায়ীরা ইজারা দিতে অপারগতা প্রকাশ করে, কিছু ব্যবসায়ীর কাছ থেকে জোর পূর্বক টাকা আদায় কালে ইজারাদারদের সাথে ব্যবসায়ীদের সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে।

এ বিষয়ে বুড়িচং থানা অফিসার ইনচার্জ আনোয়ারুল হক জানান, সংঘর্ষের খবর পেয়ে ঘটনান্থলে বুড়িচং ও দেবপুর ফাঁড়ী পুলিশ অবস্থান নেয়। পরে কুমিল্লা থেকে এক প্লাটুন অতিরিক্ত পুলিশ এসে যোগ দেয়। পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রনে পুলিশ ৬ রাউন্ড ফাঁকা গুলি ছুড়ে। এ বিষয়ে এখনো কোন লিখিত অভিযোগ আসেনি। ঘটনাস্থলে পুলিশ মোতায়েন করা আছে।

এদিকে অতিরিক্ত ইজারা আদায় ও ইজারার জন্য ব্যবসায়ীদের মারধরের প্রতিবাদে ঘটনার দিন বিকেলে নিমসার বাজার এলাকায় ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়কে মানববন্ধন, প্রতিবাদ সভা ও বিক্ষোভ করেছে বাজারের ব্যবসায়ী, কৃষক ও শ্রমিকবৃন্দ। মানববন্ধনে নিমসার বাজার সমিতির সভাপতি ব্যবসায়ী হাজী হুমায়ূন কবির মেম্বার অভিযোগ করে বলেন, বাজারে ইজারা আদায়ের নামে চাঁদাবাজী চলছে, ব্যবসায়ীদের জিম্মি করে ইজারার চাঁদা আদায় করা হচ্ছে।

ব্যবসায়ীরা অতিরিক্ত ইজারার টাকা দিতে অপারগতা প্রকাশ করলে তাঁদের মারধর করা হচ্ছে। দেশের বিভিন্ন প্রান্ত থেকে আগত সবজীর গাড়ী থেকে জোর পূর্বক অতিরিক্ত চাঁদা আদায় করা হচ্ছে। ফলে দূর-দূরান্ত থেকে আগত ব্যবসায়ীরা নিমসার বাজারে নতুন করে সবজীর গাড়ী নিয়ে আসতে চাচ্ছেন না। ফলে বাজারের স্থায়ী ব্যবসায়ী ও এলাকার কৃষক-শ্রমিকবৃন্দ হুমকীর মূখে পড়ছে।

দূর-দূরান্ত থেকে ব্যবসায়ীরা নিমসার বাজারের না আসলে ধীরে-ধীরে ঐতিহ্যবাহী এ বাজারটি ধ্বংশ হয়ে যাবে। তাঁই বাজারটিকে রক্ষার জন্য আজ এই মানববন্ধন করা হচ্ছে। বাজারের ব্যবসায়ীদের দাবী হচ্ছে ইজারা আদায়ের জন্য সরকারের ঘোষিত নিয়ম মেনে চলতে হবে। সরকারের ঘোষিত নিয়মের অধিক ইজারা আদায় করা যাবে না। আর যে পরিমান ইজারার টাকা নেয়া হয় সেই পরিমান সরকারী লিখিত রশিদ দিতে হবে।

মানববন্ধনে এসময় আরো উপস্থিত ছিলেন, ইউনিয়ন যুবলীগের সাবেক সভাপতি মোঃ সাহেব আলী, ইউনিয়ন যুবলীগের সভাপতি মাসুদ রানা, সেক্রেটারী মোবারক হোসেন মেম্বার, ইউনিয় ছাত্রলীগের সভাপতি আবদুল কাদের জিলানী, সেক্রেটারী মোঃ শাহ আলম. সিনিয়র সহ-সভাপতি আবু নাসের সবুজ, ব্যবসায়ী জাকির মুন্সি. সামু মিয়া, হেলাল উদ্দিন, ইকরাম মুন্সি, অহিদ মেম্বার, শাহ আলম, আবু মিয়া, অহিদ মিয়াসহ বাজারের সকল ব্যবসায়ী, এলাকার কৃষক ও শ্রমিকবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।

আর পড়তে পারেন