মঙ্গলবার, ১৩ই এপ্রিল, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ

কুমিল্লার তিতাসে এক রাতে ৪ ব্যবসা প্রতিষ্ঠানে চুরি

আজকের কুমিল্লা ডট কম :
এপ্রিল ১৮, ২০১৯
news-image

 

জাকির হোসেন হাজারীঃ
কুমিল্লার তিতাস উপজেলা কড়িকান্দি বাজারে এক রাতে ৪ ব্যবসা প্রতিষ্ঠানে চুরির ঘটনা ঘটেছে। বুধবার রাতে সাটারের তালা কেটে সগদ টাকা ও মালামালসহ প্রায় ৫লাখ টাকার জিনিসপত্র নিয়ে যায় চোরের দল। চুরির ঘটনায় বাজারের ব্যবসায়ীদের মাঝে আতঙ্ক বিরাজ করছে। স্থানীয় ইউপি চেয়ারম্যান ও পুলিশ ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছেন।

বাজারের ব্যবসায়ীরা জানান, প্রায় রাতেই বাজারে ছোট খাটো চুরির ঘটনা ঘটে আবার চোর ধরাও পরে। ধরা পড়লে চুরি যাওয়া মালের সমপরিমান টাকা আদায় করে চোরকে ছেড়ে দেওয়া হয়। হয়রানীর ভয়ে পুলিশকে জানানো হয়না বলে নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক ব্যবসায়রা জানান।

সরেজমিনে গেলে বাজারের ভূইয়া ইলেকট্রনিক্স এর মালিক মো. ছাইদুর ভূইয়া জানান সাটারের তালা কেটে তার দোকান থেকে ৭টি টিভি, ১০টি স্যালিং ফ্যান, ২টি চার্জার ফ্যান, স্টেপ্লাাজার ১০টি, নগদ ৭০ হাজার টাকা ও একটি ফ্রীজ, মা টেলিকমের মালিক মো. বিল্লাল হোসেনের দোকান থেকে মোবাইল ২৫টি মোবাইল সেট, মেমোরি কার্ড, ডিভাইজ, মোবাইল চার্জার, প্যানড্রাইভসহ দেড় লাখ টাকার মালামাল এবং হুমায়ুন মিয়ার মোবাইল মেরামতের দোকান থেকে প্রায় ১৫ হাজার টাকার মালামাল নিয়ে গেছে।

হক বস্ত্র বিতানের তালা কেটে কিছুই নিতে পারেনি বলে মালিক হক মিয়া জানান।

কড়িকান্দি ইউপি চেয়ারম্যান মহসিন ভূইয়া জানান, কয়েকদিন আগে চুরির ঘটনায় সিসি ক্যামেরা দেখে চোরকে আটক করে ক্ষতিপুরণ রেখে ছেড়ে দেয় ব্যবসায়ীরা। আজ চারটি দোকানে চুরির পর এঘটনা শুনে ওই চোরকে আর খোজে পাওয়া যাচ্ছেনা। চুরি এবং ডাকাতি প্রতিরোধের জন্য প্রশাসন এবং ব্যবসায়ীদের আলোচনা করে বাজারটি সিসি ক্যামেরার আওতায় নিয়ে আসার ব্যবস্থা গ্রহন করবো। পাশাপাশি নৈশ প্রহরীও নিয়োগ করবো।

তিতাস থানার ওসি সৈয়দ আহসানুল ইসলাম জানান, খবর পেয়ে আমার দু’জন অফিসার ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছেন। চোর সিন্ডিকেটকে ধরা এবং চুরি হওয়া মালামাল উদ্ধারে অভিযান চলছে। আর পূর্বের চুরি ঘটনা আমাদের না জানালেতো আর কিছু করার নেই।

আর পড়তে পারেন