মঙ্গলবার, ২২শে জুন, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ

উন্নয়নের স্বার্থে আওয়ামী লীগকে ভোট দিয়ে আবার ক্ষমতায় আনতে হবে -ত্রাণ মন্ত্রী মোফাজ্জল হোসেন চৌধুরী মায়া

আজকের কুমিল্লা ডট কম :
জানুয়ারি ১৩, ২০১৮
news-image

মো. দ্বীন ইসলাম, মতলব উত্তর :
দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণ মন্ত্রী মোফাজ্জল হোসেন চৌধুরী মায়া বীরবিক্রম এমপি বলেছেন, দেশের উন্নয়নের জন্য আওয়ামী লীগের কোনো বিকল্প নেই। আগামীতে আওয়ামী লীগ ক্ষমতায় না এলে দেশ পিছিয়ে পড়বে। উন্নয়নের ধারা অব্যহত রাখতে ও ডিজিটাল বাংলাদেশ গড়তে শেখ হাসিনার সরকারকে আবারও ক্ষমতায় আনতে হবে।

তিনি আরো বলেন, জনগণ বিএনপির জ্বালাও পোড়াও আর পেট্রোল বোমা মেরে মানুষ হত্যা চায় না। তারা চায় দেশের শান্তি সমৃদ্ধি আর উন্নয়ন। একমাত্র শেখ হাসিনার সরকারই এ দেশের উন্নয়ন করে।

তিনি শনিবার বিকেলে চাঁদপুরের মতলব উত্তর উপজেলার মমরুজকান্দি সপ্তগ্রাম উচ্চ বিদ্যালয় মাঠে ইসলামাবাদ, দূর্গাপুর, বাগানবাড়ি, সুলতানাবাদ, ফতেপুর পূর্ব ও ফতেপুর পশ্চিম ইউনিয়ন পরিষদ, আওয়ামী লীগ ও সহযোগী সংগঠনের উদ্যোগে জনসভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে এ কথা বলেন।

উপজেলা আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক এমএ কুদ্দুসের সভাপতিত্বে জনসভায় ত্রাণমন্ত্রী আরো বলেন, শেখ হাসিনার সরকার ক্ষমতায় এলে দেশের উন্নয়ন হয়। আর বিএনপি ক্ষমতায় গেলে দেশ অন্ধকারে ডুবে যায়। দেশ ও উন্নয়নের স্বার্থে আওয়ামী লীগকে ভোট দিয়ে আবার ক্ষমতায় আনতে হবে উল্লেখ করে মন্ত্রী বলেন, এখন আমাদের সামনে চ্যালেঞ্জ হচ্ছে ২০১৮ সালের শেষের দিকে জাতীয় সংসদ নির্বাচন। এই সময়ে আমাদের চ্যালেঞ্জ হচ্ছে জনগণের এই সমর্থন আমাদের ধরে রাখতে হবে। এই সরকারের উন্নয়নের ধারাবাহিকতা বিঘিœত করতে একটি মহল তৎপর।’ তিনি সকলকে আন্তরিকতার সাথে জনগণের সেবায় আতœনিয়োগ করার আহবান জানান। উপজেলা আওয়ামীলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক ও জেলা পরিষদের প্যানেল চেয়ারম্যান এইচএম জাহাঙ্গীর আলমের সঞ্চালনায় জনসভায় বক্তব্য রাখেন- কেন্দ্রীয় যুবলীগ নেতা সাজেদুল হোসেন চৌধুরী দিপু, বাংলাদেশ আওয়ামীলীগ জাতীয় পরিষদ সদস্য একেএম রিয়াজ উদ্দিন মানিক, মতলব উত্তর উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান মনজুর আহমদ, ঢাকা মহানগর উত্তর যুবলীগের সভাপতি আলহাজ্ব মাইনুল হোসেন খান নিখিল, মন্ত্রীপতœী পারভীন চৌধুরী, মতলব উত্তর ও দক্ষিণ উপজেলা মহিলালীগের উপদেষ্টা সুবর্ণা চৌধুরী বীনা, উপজেলা আওয়ামীলীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক আইয়ুব আলী গাজি, কবির হোসেন মাষ্টার, সাংগঠনিক সম্পাদক মো. শাহজাহান প্রধান, উপজেলা পরিষদের ভাইস চেয়ারম্যান আরিফুল ইসলাম সরকার ইমন, ছেংগারচর পৌরসভার মেয়র আলহাজ্ব রফিকুল আলম জর্জ, দূর্গাপুর ইউপি চেয়ারম্যান দেওয়ান মো. আবুল খায়ের, ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সভাপতি মাহবুব হোসেন প্রধান, সাধারণ সম্পাদক দেওয়ান মো. মমিন, উপজেলা মুক্তিযোদ্ধা সংসদের সাবেক কমান্ডার মোজাম্মেল হক, ফতেপুর পূর্ব ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক কাজী সালাউদ্দিন, ফতেপুর পশ্চিম ইউপি চেয়ারম্যান নূর মোহাম্মদ, ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক সরকার আলাউদ্দিন, উপজেলা মহিলালীগের সভাপতি পারভীন শরীফ, ইসলামাবাদ ইউপি চেয়ারম্যান সাজেদুল হোসেন বাবু বাতেন, ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক মো. জসিম উদ্দিন সরকার, সুলতানাবাদ ইউপি চেয়ারম্যান মঞ্জুর মোর্শেদ স্বপন, বাগানবাড়ি ইউপি চেয়ারম্যান মো. নান্নু মিয়া, উপজেলা যুবলীগের সভাপতি দেওয়ান জহির, সাধারণ সম্পাদক কাজী শরীফ, উপজেলা ছাত্রলীগের আহ্বায়ক মিনহাজ উদ্দিন খান, যুগ্ম আহ্বায়ক তামজিদ সরকার রিয়াদ, উপজেলা স্বেচ্ছাসেবকলীগের সদস্য সচিব অ্যাড. আক্তারুজ্জামান ও ঢাকা মহানগর উত্তর ছাত্রলীগের সহ-সভাপতি রহমত উল্লাহ সরকার লিখন প্রমুখ।

আর পড়তে পারেন