বুধবার, ১৯শে জুন, ২০১৯ ইং

সালমান ৫৩, আলিয়া ২৬, অসম জুটির রহস্য কী?

আজকের কুমিল্লা ডট কম :
এপ্রিল ১৪, ২০১৯
news-image

 

ডেস্ক রিপোর্টঃ

বলিউডের খ্যাতিমান চিত্রনির্মাতা সঞ্জয় লীলা বানসালির সিনেমায় কাজ করা যেকোনো অভিনেতার কাছেই স্বপ্নপূরণের মতো। গত বছর মুক্তি পেয়েছিল বানসালির ব্লকবাস্টার ছবি ‘পদ্মাবত’। আর এ বছরের মার্চেই ঘোষণা এলো এ নির্মাতার পরবর্তী প্রকল্প ‘ইনশাআল্লাহ’। কিন্তু সুপারস্টার সালমান খানের সঙ্গে আলিয়া ভাটের জুটি বাঁধার ঘোষণার পর নড়েচড়ে বসে বি-টাউন। কারণ একটাই, এ জুটির বয়সের ব্যবধান।

সালমান খানের বয়স ৫৩ আর আলিয়া ভাটের বয়স ২৬ বছর। বয়সের বিশাল ব্যবধান নিয়ে অন্তর্জালে শোরগোল পড়ে যায়। অনেকেই বলেছেন, সালমান খানের সঙ্গে আলিয়ার রোমান্স মানায় না। সালমানকে আলিয়ার ‘চাচার’ ভূমিকায় দেখা গেলেই ভালো। যদিও সিনেমায় দুজনের কী ভূমিকা, তা না জেনেই অন্তর্জালে নানা গুঞ্জন। অবশেষে অসম জুটি নিয়ে মুখ খুললেন আলিয়া ভাট।

সম্প্রতি সংবাদমাধ্যম মিড-ডেকে দেওয়া সাক্ষাৎকারে ইনশাআল্লাহ নিয়ে কথা বলেছেন আলিয়া। বলেন, বানসালি দূরদৃষ্টিসম্পন্ন। মানুষ খুব দ্রুতই বিচার করে বসে। এই অসম কাস্টিংয়ের পেছনে কারণ রয়েছে।

যদিও কাকে কী ভূমিকায় দেখা যাবে, সেই রহস্যের জট খোলেননি আলিয়া ভাট। দর্শককে সম্ভবত প্রেক্ষাগৃহে বসেই সেটা দেখতে হবে।

‘গাল্লি বয়’ অভিনেত্রী আলিয়া বলেন, ‘সালমানের সঙ্গে কাজ করার জন্য মুখিয়ে আছি। কখনোই ভাবিনি এই কম্বিনেশনটা (সালমান ও বানসালির সঙ্গে কাজ করা) সম্ভব হবে। এটা হবে কৌতূহল জাগানো যাত্রা। আর সালমান সত্যিই মহৎ হৃদয়ের।’

বোঝাই যাচ্ছে, এই ছবিতে যদি সালমান ও আলিয়াকে রোমান্স করতেও দেখা যায়, তবে তার পেছনে সুনির্দিষ্ট কারণ থাকবে। অথবা তাঁদের ভাইবোন হিসেবেও দেখা যাবে কি না, তা এখনো অজানা।

‘ইনশাআল্লাহ’ ছবিতে প্রথমবারের মতো সালমান ও বানসালির সঙ্গে কাজ করছেন আলিয়া। প্রায় দুই দশক পর বানসালির সঙ্গে কাজ করছেন বলিউড ভাইজান। বানসালির ‘সাওয়ারিয়া’ ছবিতে সর্বশেষ কাজ করেছিলেন সালমান, যেটি দিয়ে বলিউডে অভিষেক হয় আলিয়ার বর্তমান প্রেমিক রণবীর কাপুরের।

আর পড়তে পারেন