বুধবার, ২২শে মে, ২০১৯ ইং

ঢাবি উপাচার্যের বাসভবনের সামনে টায়ার জ্বালিয়ে ছাত্রলীগের বিক্ষোভ

আজকের কুমিল্লা ডট কম :
মার্চ ১২, ২০১৯
news-image

 

ডেস্ক রিপোর্ট :

দীর্ঘ ২৮ বছর পর সোমবার হওয়া ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় কেন্দ্রীয় ছাত্র সংসদ (ডাকসু) নির্বাচন বাতিল করে পুনরায় ভোটের দাবি জানিয়েছে ক্ষমতাসীন দলের ছাত্রসংগঠন ছাত্রলীগ। ডাকসুর পুনর্র্নিবাচনের দাবিতে উপাচার্যের বাসভবনের সামনে অবস্থান নিয়েছেন তারা।

সোমবার রাতে উপাচার্য নুরুল হক নুরকে ভিপি হিসেবে ঘোষণা করার সাথে সাথেই বিক্ষুব্ধ হয়ে ওঠেন শোভনের অনুসারীরা। রাত সাড়ে ৪টার দিকে ছাত্রলীগের সভাপতি রেজওয়ানুল হক চৌধুরী শোভনের অনুসারীরা ভিসির বাসভবনের সামেন অবস্থান নেন। পরে মঙ্গলবার সকাল ৬টার দিকে ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক গোলাম রাব্বানীসহ বাকি নেতাকর্মীরা সেখানে যোগ দেন।

মঙ্গলবার সকালে গিয়ে দেখা যায়, ভিসির বাসভবনের সামনে অবস্থান নিয়ে ভোট বাতিল চেয়ে বিভিন্ন স্লোগান দিচ্ছেন ছাত্রলীগের নেতাকর্মীরা। ‘প্রহসনের নির্বাচন মানি না’, ‘স্বাধীনাতবিরোধীদের পুনর্বাসন চলবে না’ এসব স্লোগান দিচ্ছেন নেতাকর্মীরা।

ভিসির বাসভবনের সামনে থাকা ছাত্রলীগের এক কর্মী সমকালকে বলেন, মিডিয়াকে কাজে লাগিয়ে নুরু ভোটারদের প্রভাবিত হয়েছে। তিনি স্বাধীনতাবিরোধী। তাকে মানি না। তাকে বহিষ্কার করা হোক। তারা নির্বাচন বর্জন করেছে। তারা কিভাবে নির্বাচিত হয়?

সোমবার রাত ৩টা ২৪ মিনিটে নবাব নওয়াব আলী চৌধুরী সিনেট ভবনে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য ও পদাধিকার বলে ডাকসুর সভাপতি অধ্যাপক আখতারুজ্জামান ডাকসু নির্বাচনের চূড়ান্ত ফল ঘোষণা করেন।

বহুল প্রতীক্ষিত ডাকসু নির্বাচনে সোমবার ভিপি পদে বিজয়ী হয়েছেন কোটা সংস্কার আন্দোলনের নেতা নুরুল হক নুর। তিনি ছাত্র অধিকার সংরক্ষণ পরিষদ সমর্থিত প্যানেল থেকে ভিপি পদে নির্বাচন করেন। নুর ১১ হাজার ৬২ ভোট পেয়ে বিজয়ী হয়েছেন। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী ছিলেন ছাত্রলীগের সভাপতি রেজওয়ানুল হক চৌধুরী শোভন। তবে জিএস, এজিএসসহ ডাকসুর বেশিরভাগ পদে ছাত্রলীগের প্রার্থীরাই বিজয়ী হয়েছেন। জিএস পদে গোলাম রাব্বানী ও এজিএস পদে সাদ্দাম হোসাইন বিজয়ী হন। ভিপি ছাড়াও সমাজসেবা সম্পাদক পদে ছাত্র অধিকার সংরক্ষণ পরিষদ প্যানেলের আখতার হোসেন জয়লাভ করেন।

আর পড়তে পারেন