বৃহস্পতিবার, ৭ আগস্ট, ২০২০

হোমনায় পুলিশ পরিচয়ে স্বামীকে তুলে নেয়ার অভিযোগে স্ত্রীর সংবাদ সম্মেলন

আজকের কুমিল্লা ডট কম :
জুলাই ১৩, ২০২০
news-image

 

জাকির হোসেন হাজারীঃ

কুমিল্লার হোমনায় পুলিশ পরিচয়ে স্বামীকে তুলে নিয়েছে, সংবাদ সম্মেলনে এমন অভিযোগ করেছেন স্ত্রী স্বর্ণালী আক্তার।

আজ সোমবার সন্ধ্যায় দাউদকান্দি উপজেলা সদরের নিরিবিলি রেস্তোরায় সংবাদ সম্মেলনে স্বামী মাহবুব আসলাম কাঞ্চনকে হোমনা উপজেলা শ্রমীকলীগ নেতা দাবী করে স্ত্রী স্বর্ণালী আক্তার লিখিত বক্তব্যে বলেন, আমার স্বামী দীর্ঘদিন আওয়ামী লীগের রাজনীতিতে সস্পৃক্ত থাকা অবস্থায় কয়েকটি রাজনৈতিক মামলার আসামী হয়। তাই একবছর যাবৎ আমরা ঢাকায় থাকি। গত ১০ জুলাই শুক্রবার দুপুরে এএসপি (হোমনা সার্কেল) ফোন দিয়ে আমার স্বামীকে অফিসে সরাসরি দেখা করতে বলে। পরবর্তীতে এসপি স্যারের ড্রাইভার রাসেল একাধিকবার ফোন দেয়ায় ১২জুন রবিবার ঢাকা থেকে হোমনার নিজ বাড়ি আসি। বাড়িতে পৌছার ৫মিনিট পরই হঠাৎ সেখানে উপস্থিত হয় হোমনা থানার এএসআই নারায়ন এবং তার সহযোগীরা (সবাই সাদা পোশাক পরা)। তারপর আমার স্বামীকে ধরে কালো মাইক্রোবাসে করে নিয়ে যায়। আমি সাথে সাথে হোমনা থানায় যাই। কিছুক্ষণ পর আমি এএসআই নারায়নকে দেখলেও তাঁর সাথে কথা বলতে পারিনি।

আজ সোমবার (১৩ জুলাই) সকালে কুমিল্লা জেলা গোয়েন্দা পুলিশের অফিসে গিয়েও স্বামীর কোন খোঁজ পাইনি। তাই আমার স্বামীকে খুঁজে পাওয়ার জন্য আপনাদের (সাংবাদিক) সহযোগীতা কামনা করছি।

হোমনা থানার এএসআই নারায়ন ফোনে এসব অভিযোগ অস্বিকার করে বলেন, তিনি এব্যাপারে কিছুই জানেন না।

হোমনা থানার ওসি মোঃ আবুল কায়েস আখন্দ বলেন মাহবুব আসলাম কাঞ্চনের নামে হোমনা , বাঞ্চারামপুর এবং দাউদকান্দি থানায় জোড়া খুনসহ ডাকাতি ও দ্রুত বিচার আইনে বেশ কয়েকটি মামলা রয়েছে। তাকে অপহরণ করবে কেনো, তাকেতো গ্রেপ্তার করার জন্য পুলিশ খুঁজতেছে।

সহকারী পুলিশ সুপার (হোমনা সার্কেল) মোঃ ফজলুল করিম বলেন, এ ব্যাপারে আমার সাথে কোন কথাই হয়নি।

আর পড়তে পারেন