রবিবার, ৭ই জুন, ২০২০ ইং

‘হোমনার সাহসী নারী’ ইউএনও ছুটছেন উপজেলার এক প্রান্ত থেকে আরেক প্রান্তে

আজকের কুমিল্লা ডট কম :
মার্চ ২৮, ২০২০
news-image

 

মোঃ আতিক, হোমনাঃ

প্রাণঘাতী করোনাভাইরাস সংক্রমণ মোকাবিলায় কাজ করছে সরকারে। সরকারের এ সব নির্দেশনা বাস্তবায়নে মাঠ পর্যায়ে কাজ করে স্থানীয় প্রশাসন। তবে এসব নির্দেশনা পালনে বেশ তৎপর ও আন্তরিকতা দেখা গেছে কুমিল্লার হোমনা উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা তাপ্তি চাকমাকে।

জনগণকে সচেতন করা, হোম কোয়ারেন্টাইন নিশ্চিত করা, দ্রব্যমূল্য নিয়ন্ত্রণে রাখার পাশাপাশি নিম্ন আয়ের মানুষের খোঁজ-খবর রাখছেন তিনি। এরই মধ্যে তাঁর এসব কর্মকান্ডের কারণে সাহসী নারী’ ইউএনও হিসেবে আখ্যা পেয়েছেন হোমনাবাসীর কাছে। উপজেলার সব মহলে তিনি এক সাহসী ও সৎ নারী হিসেবে পরিচিত। প্রশাসনিক কর্মকর্তা হিসেবে তাঁর কর্মকান্ড প্রশংসনীয় এবং দৃশ্যমান।

জানা গেছে, করোনা ভাইরাস সংক্রমণ প্রতিরোধে জনগণকে সচেতন এবং হোম কোয়ারেন্টাইন নিশ্চিত করার লক্ষ্যে উপজেলার বিভিন্নস্থানে ছুটে চলছেন তিনি। এছাড়া, সচেতনতার পাশাপাশি লোকজনের মাঝে মাক্সও বিতরণ করেছেন তিনি।

কোথাও কোন রকম আইনের ব্যত্যয় ঘটলে ভ্রাম্যমাণ আদালতের মাধ্যমে আইন অমাণ্যকারীদের বিরুদ্ধে জরিমানাও করছেন তিনি। করোনা ভাইরাসকে পুঁজি করে অসাধু ক্রেতারা দ্রব্যমূল্য বৃদ্ধি করে দিয়েছেন। এ জন্য উপজেলার প্রত্যন্ত অঞ্চলে বাজার নজরদারি করে জরিমানাও করেছে অসাধু দোকানীদের বিরুদ্ধে।

এ সময় তিনি গণমাধ্যমকে বলেন, হাট-বাজার বন্ধ হওয়ায় সবচেয়ে বেশি খেটে খাওয়া ও অসহায় মানুষগুলো ক্ষতি হবে, এখন তাদের উপার্জন বন্ধ। এজন্য সাধ্য অনুযায়ী আমি তাদের সহযোগিতা করার চেষ্টা করেছি।

প্রশাসন কর্তৃক্ষ নির্দেশনা মেনে চলুন, প্রয়োজন ছাড়া ঘর থেকে বের না হওয়ার আহ্বান জানিয়েছেন  তিনি।

আমাদের প্রদত্ত নির্দেশনাসমূহ মেনে চলুন, এটাই হবে আপনাদের পক্ষ থেকে আমাদের জন্য সহযোগিতা। একান্ত প্রয়োজন না হলে ঘর থেকে বের হবেন না। নির্দেশনা না মানলে প্রয়োজনীয় আইনানুগ ব্যবস্থা নেয়া হবে।

আর পড়তে পারেন