শনিবার, ৫ই ডিসেম্বর, ২০২০ খ্রিস্টাব্দ

সাবেক এমপি কায়কোবাদের বিরুদ্ধে খাল দখলের অভিযোগ

আজকের কুমিল্লা ডট কম :
অক্টোবর ২৮, ২০২০
news-image

মাহবুব আলম আরিফ, মুরাদনগরঃ

কুমিল্লা-৩ মুরাদনগর আসনের সাবেক সংসদ সদস্য ও ২১শে আগষ্ট গ্রেনেড হামলা মামলার অন্যতম আসামী কাজী শাহ্ মোফাজ্জল হোসেন কায়কোবাদের বিরুদ্ধে নিজ বাড়ীর সামনে অবৈধ ভাবে খাল দখল করে ভরাটের অভিযোগ উঠেছে।

স্থানীয়দের দাবি এই খাল ভরাটের ফলেই সামান্য বৃষ্টিতে উপজেলা সদর এলাকার প্রায় পাঁচশত পরিবার ময়লা পানিতে তলিয়ে যায়। কয়েকটি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানসহ সদরের পুরো মাষ্টার পাড়া এলাকায় সৃষ্টি হয় স্থায়ী জলাবদ্ধতা। আর এতে করে উপজেলা সদর এলাকাবাসীর জীবনে নেমে আসে সীমাহীন দুর্ভোগ।

জানা যায়, গোমতী নদীর পাড়ের মুরাদনগর কলেজ পাড়া এলাকার বদ্দার বিল থেকে সাবেক এমপি কায়কোবাদের বাড়ী হয়ে সদরের মাষ্টার পাড়া এলাকা পর্যন্ত একটি বিশাল খাল ছিল। যা সাবেক এই এমপি তার নিজ বাড়ীতে প্রবেশ করার সুবিধার্থে নাম মাত্র পানি নিষ্কাশনের ব্যবস্থা রেখে অবৈধ ভাবে খালটি ভরাট করে ফেলে।

মুরাদনগর উপজেলা সদরের ইউপি সদস্য আক্তার হোসেন বলেন, সাবেক এমপি কায়কোবাদ সাহেব তার নিজ বাড়ীতে যাওয়ার সুবিধার্থে ক্ষমতার অপব্যবহার করে এই খালটি দখল করে ভরাট করে ফেলেন। সাহস পেয়ে বর্তমানে কায়কোবাদের বাড়ীর আশ-পাশের সকলেই যার যার মতো করে খালটি দখল করে ফেলেছে। এসময় ইউপি সদস্য আক্তার হোসেন স্থানীয় বাসিন্দা আহসান হাবিব শামিম, হেলাল উদ্দিন, কেএম শারফিন শাহ্, মোঃ রুহুল আমিন, আরিফুল ইসলাম সাহেদ ও জহিরুল ইসলাম জুয়েলসহ উপস্থিত সকলেই দাবি জানান প্রশাসন যেন দ্রæত অবৈধ ভাবে দখল হয়ে যাওয়া খালটি সাবেক এমপি কায়কোদের হাত থেকে উদ্ধার করে পুনরায় খালের স্বাভাবিক চিত্র ফিরিয়ে আনে।

এ বিষয়ে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা অভিষেক দাশ বলেন, অবৈধ ভাবে খাল দখল করে ঘরবাড়ি নির্মাণ করার বিষয়টি নজরে এসেছে। যারা অবৈধভাবে এসব খাল দখল করেছে আমরা তাদের একটি নামের তালিকা জেলায় পাঠিয়েছি। সেখান থেকে অনুমতি পেলেই দ্রুত উচ্ছেদ কর্যক্রম পরিচালনা করে এসব অবৈধ দখলদারদের হাত থেকে খাল উদ্ধার করা হবে।

আর পড়তে পারেন