শনিবার, ১৪ই ডিসেম্বর, ২০১৯ ইং

মেঘনায় ইউপি চেয়ারম্যানের বিরুদ্ধে ষড়যন্ত্রের প্রতিবাদে মানববন্ধন, বিক্ষোভ মিছিল ও সংবাদ সম্মেলন

আজকের কুমিল্লা ডট কম :
নভেম্বর ৫, ২০১৯
news-image

 

জাকির হোসেন হাজারীঃ

কুমিল্লা জেলার মেঘনা উপজেলার ভাওরখোলা ইউপি চেয়ারম্যান ফারুক সরকার আব্বাসীর বিরুদ্ধে অপ-প্রচার ও ষড়যন্ত্রের প্রতিবাদে মানববন্ধন ও বিক্ষোভ মিছিল করেছে এলাকাবাসী।

২৭ অক্টোবর হোমনা-মেঘনা আঞ্চলিক সড়কের ভাওরখোলায় চেয়ারম্যানের বিরুদ্ধে সাতজন ইউপি সদস্য বিভিন্ন অনিয়ম, দূর্নীতি ও স্বেচ্ছাচারিতার অভিযোগ এনে অপসারনের দাবীতে মাননববন্ধন করে এলাকাবাসী। ওইদিনই মেঘনা আইডিয়েল স্কুলে সাংবাদিক সম্মেলন করে ওই ইউনিয়নের আটজন সদস্য লিখিত বক্তব্যে চেয়ারম্যানের বিভিন্ন অনিয়ম দূর্নীতি ও জমি দখল কওে মৎস্য প্রকল্প করার কথা তুলে ধরলে বিভিন্ন প্রিন্ট ও ইলেকট্রনিক মিডিয়া ফলাও প্রকাশ করে।

এর প্রতিবাদে মঙ্গলবার (৫ নভেম্বর) দুপুরে একই সড়কে চেয়ারম্যান ফারুক সরকার আব্বাসীর পক্ষে মানববন্ধন ও বিক্ষোভ মিছিল করে এলাকাবাসী। মানববন্ধনে জমির মালিক দাবীদার রায়হান আহম্মেদ, মনোয়ারা বেগম ও ঝর্ণা আক্তার বলেন, বর্ষাকালে আমাদের জমিতে পানি থাকার কারনে কোন ফসল হয় না। এই মৌসুমে আমাদের জমি পত্তন(পোষানী) নিয়ে চেয়ারম্যান ফারুক সরকার আব্বাসী মাছ চাষ করে. বাকী ৬ মাস আমরা চাষাবাদ করি।

পরে চেয়ারম্যান ফারুক সরকার আব্বাসী তাঁর বাড়িতে সংবাদ সম্মেলন করে লিখিত বক্তব্যে বলেন, এখানকার জনগণ আমাকে ভোটের মাধ্যমে তিনবার চেয়ারম্যান বানিয়েছে। আমার জনপ্রিয়তায় ঈর্ষন্বিত হয়ে এলাকায় আমার নামে বিভিন্ন ষড়যন্ত্রসহ কুৎসা রটনা করে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়সহ বিভিন্ন দপ্তরে কয়েকটি মিথ্যা অভিযোগ করেছে স্বার্থন্বেষী মহল, যার তথ্য প্রমাণ না পাওয়ায় ইতিমধ্যে খারিজ হয়ে গেছে।

মেঘনা উপজেলা যুবলীগের সাবেক আহবায়ক চেয়ারম্যান ফারুক সরকার আব্বাসী বলেন, কথিত আ’লীগ নেতা নামধারী ভূমিদস্যু মোবারক হোসেন লিটন এলাকায় খুটি, মিটারসহ নতুন বিদ্যুত সংযোগ দেয়ার নামে মানুষের সাথে প্রতারণা করার একাধিক অভিযোগ আমার নিকট করেছে এলাকাবাসী। এরপর থেকেই লিটন আমার নামে বিভিন্ন ষড়যন্ত্র শুরু করে। সংবাদ সম্মেলনের মাধ্যমে আমার নামে করা মিথ্যা বানোয়াট অভিযোগের তীব্র নিন্দা জানাচ্ছি এবং সঠিক তদন্তের দাবি জানাচ্ছি।

আর পড়তে পারেন