শনিবার, ২১শে সেপ্টেম্বর, ২০১৯ ইং

বাংলাদেশ পারমানবিক বিদ্যুৎ যুগে প্রবেশের মাধ্যমে সকলের ঘরে ঘরে বিদ্যুৎ পৌছে দেয়ার লক্ষ্যে কাজ করছে-ত্রাণমন্ত্রী

আজকের কুমিল্লা ডট কম :
ডিসেম্বর ১, ২০১৭
news-image

 

মো. দ্বীন ইসলাম, মতলব উত্তর :
মতলব দক্ষিণ উপজেলায় একসাথে বিদ্যুতের ২৭.৬৩ কিলোমিটার নতুন লাইন উদ্বোধন করা হয়েছে। এর মাধ্যমে ২ হাজার গ্রাহক বিদ্যুৎ সুবিধা পেলেন। দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণ মন্ত্রী মোফাজ্জল হোসেন চৌধুরী মায়া বীরবিক্রম এমপি স্ইুচ টিপে এ লাইনের উদ্বোধন করেন। নিজ নির্বাচনী এলাকা মোহনপুরে এ উপলক্ষে আয়োজিত অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন- চাঁদপুর পল্লী বিদ্যুৎ-২ এর জেনারেল ম্যানেজার আবু তাহের।

অনুষ্ঠানে মায়া চৌধুরী বলেন, বাংলাদেশ পারমানবিক বিদ্যুৎ যুগে প্রবেশের মাধ্যমে সকলের ঘরে ঘরে বিদ্যুৎ পৌছে দেয়ার লক্ষ্যে কাজ করছে। এর জন্য নিরবচ্ছিন্ন সরকার প্রয়োজন। আগামী নির্বাচনে আওয়ামীলীগের পক্ষে জনমত তৈরীর জন্য নেতাকর্মীদের প্রতি আহ্বান জানান মন্ত্রী।

দেশের উন্নয়নে সরকারের নেয়া পদক্ষেপ তুলে ধরে মন্ত্রী বলেন, টেকসই বিদ্যুৎ সরবরাহ নিশ্চিত করার জন্য আমরা জ্বালানি নীতিতে জীবাশ্ম জ্বালানির পাশাপাশি বিকল্প জ্বালানি ব্যবহারের ওপর জোর দিয়েছি। অর্থাৎ তেল, গ্যাস বা কয়লার পাশাপাশি পারমাণবিক, সৌর এবং বায়ুচালিত বিদ্যুৎ উৎপাদনের ওপর গুরুত্ব দিয়েছি। ২০২৩ সালে রূপপুর পারমাণবিক কেন্দ্র থেকে ১ হাজার ২০০ মেগাওয়াট এবং পরের বছর আরো এক হাজার ২০০ মেগাওয়াট সর্বমোট ২ হাজার ৪০০ মেগাওয়াট বিদ্যুৎ জাতীয় গ্রিডে যোগ হবে। মোট বিদ্যুৎ উৎপাদনের প্রায় ১০ শতাংশ আসবে পারমাণবিক উৎস থেকে।

ত্রাণ মন্ত্রী বলেন, বিদ্যুতের সাথে কলকারখানা স্থাপনের সম্পর্ক রয়েছে। বিদ্যুৎ ও নদীর সুবিধা নিয়ে কলকারখানার মালিকরা মতলবে কলকারখানা স্থাপন করবে বলে তিনি আশাবাদ ব্যক্ত করেন।
ত্রাণ মন্ত্রী আরো মায়া চৌধুরী বলেছেন, নিরবচ্ছিন্ন বিদ্যুৎ বাংলার প্রতিটি ঘরে পৌছে দেয়া হচ্ছে। মানুষকে আর বিদ্যুতের জন্য বিদ্যুৎ অফিসে যেতে হয় না। আমরা ৯৬ সালে ক্ষমতায় আসার পূর্বে বিদ্যুৎ নিয়ে দেশে হাহাকার ছিল আমরা ক্ষমতায় এসে বিদ্যুৎ উৎপাদনের জন্য সরকারী-বেসরকারী ভাবে বিভিন্ন প্রকল্পের কাজে হাত দিয়েছিলাম। পরবর্তীতে বিএনপি-জামাত জোট সরকার ক্ষমতায় এসে বিএনপি নেত্রীর ছেলে বিদ্যুৎ এর নামে দিয়েছিল খাম্বা। আর হাত্তয়া ভবনে বসে দূর্নীতি, লুট-পাঠ করা ছাড়া আর কিছুই দিতে পারেনি। আজ দেশের মানুষ শতকরা ৮০ ভাগ মানুষ বিদ্যুতের সুবিধা ভোগ করছেন।

বক্তব্য রাখেন- মতলব উত্তর উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান মনজুর আহমদ, মতলব উত্তর উপজেলা আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক এম এ কুদ্দুস, মতলব দক্ষিণ উপজেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি (ভারপ্রাপ্ত) এএইচএম গিয়াস, ইউএনও শহিদুল ইসলাম, শারমিন আক্তার।
শিল্পপতি শাহজাহান সিকদার, জেলা আওয়ামীলীগের আইন বিষয়ক সম্পাদক জাহাঙ্গীর আলম সরকার, জেলা পরিষদের প্যানেল চেয়ারম্যান এইচএম জাহাঙ্গীর আলম মাস্টার, উপজেলা পরিষদের ভাইস চেয়ারম্যান আরিফুল ইসলাম ইমন, উপজেলা চেয়ারম্যান কল্যাণ সমিতির সভাপতি সামছুল হক চৌধুরী বাবুলসহ স্থানীয় নেতৃবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।
সকালে ত্রাণ মন্ত্রী মোফাজ্জল হোসেন চৌধুরী মায়া বীরবিক্রম এমপি ছেংগারচর পৌরবাজার পরিদর্শণ করেন। বিভিন্ন ব্যবসায়ী ও বাজারে আগতদের সাথে কুশল বিনিময় করেন।

আর পড়তে পারেন