শনিবার, ১১ই জুলাই, ২০২০ ইং

চাঁদপুরে অগ্নিকান্ডে ৪ বসতঘর পুড়ে ছাই, ২৫ লক্ষাধিক টাকার ক্ষয়ক্ষতি

আজকের কুমিল্লা ডট কম :
মার্চ ২১, ২০২০
news-image

 

মাসুদ হোসেন, চাঁদপুরঃ

চাঁদপুর সদর উপজেলার রামপুরে ৪ পরিবারের বসতঘর আগুনে পুড়ে আনুমানিক ২৫ লক্ষাধিক টাকার ক্ষয়-ক্ষতি হয়েছে। শনিবার (২১ মার্চ) সকাল সাড়ে ১০ টায় চাঁদপুর সদর উপজেলার ৫নং রামপুর ইউনিয়নের দেবপুর ওয়াজউদ্দিন বেপারী বাড়িতে এ অগ্নিকান্ডের ঘটনা ঘটে।

অগ্নিকান্ডে ক্ষতিগ্রস্থরা হলেন একই বাড়ির মৃত সুলতান বেপারীর পুত্র মোঃ কামাল বেপারী (৫০), মোঃ জামাল (৪০),কালাম বেপারী (৩০) ও কালু বেপারীর পুত্র মোঃ বিল্লাল বেপারী (৫৫)। ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে আউয়াল বেপারী ও ইমান বেপারীর ২টি বসতঘর। ঘরে থাকা নগদ স্বর্ণালংকার, ফার্নিসার, মূল্যবান কাগজপত্রসহ সব কিছুই পুড়ে ছাই হয়ে গেছে। আগুনের লেলিহানে ঘরে থাকা কোন কিছুই সরাতে পারেনি স্থানীয়রা। এতে প্রায় ২৫ লক্ষাধিক টাকার ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে বলে ধারণা করেছেন ক্ষতিগ্রস্তরা।

সরেজমিনে গিয়ে জানা যায়, বৈদ্যুতিক সর্ট সার্কিট হয়ে জামাল বেপারীর ঘর থেকে আগুনের সূত্রপাত হয়ে মুহুর্তের মধ্যে আগুন আশপাশের ঘর গুলোতে ছড়িয়ে পড়ে। এতে কালাম বেপারী, কামাল বেপারী ও বিল্লাল বেপারীর বসতঘরেও আগুন লেগে যায়। আগুন লাগা আধা ঘন্টা পর অর্থাৎ বেলা ১১টার দিকে চাঁদপুর (উত্তর) ফায়ার সার্ভিসকে খবর দেন এলাকাবাসী। খবর পেয়ে চাঁদপুর (উত্তর) ফায়ার সার্ভিসের ইউনিট ঘটনাস্থলে পৌছালে স্হানীয়দের সহযোগিতায় প্রায় এক ঘণ্টা চেষ্টা চালিয়ে আগুন নিয়ন্ত্রণে আনলেও পুড়ে গেছে ৪টি বসতঘর ও ৩টি রান্নাঘর। এতে ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে আরো ২টি বসতঘর।

ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে চাঁদপুর (উত্তর) ফায়ার সার্ভিসের কর্মকর্তা মোঃ লিটন আহম্মেদ বলেন, আমরা আগুন লাগার খবর পেয়ে মাত্র কয়েক মিনিটের মধ্যে ঘটনাস্থলে পৌছি। দীর্ঘক্ষণ চেষ্টা চালিয়ে স্থানীয়দের সহযোগিতায় আমরা আগুন নিয়ন্ত্রণে আনতে সক্ষম হই।

তিনি আরও বলেন এতে ৭টি ঘর পুড়ে গেছে। ক্ষতিগ্রস্ত বিল্লাল বেপারী জানান, অগ্নিকান্ডের সময় আমরা পুরুষরা বাড়ির বাহিরে ছিলাম। খবর দিলে বাড়িতে এসে চোখের সামনে আমার ঘরটি পুড়ে যাচ্ছে। প্রথমে জামাল বেপারীর ঘর থেকে আগুন লাগার সাথে সাথে আমাদের অন্যান্য ঘরগুলোও পুড়ে যায়। স্থানীয়দের অক্লান্ত পরিশ্রম আর ফায়ার সার্ভিসের লোকজনের সহায়তায় বাড়ির আরো কয়েকটি ঘর অগ্নিকান্ড থেকে রক্ষা পায়।

এদিকে অগ্নিকান্ডের খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে মুহুর্তের মধ্যেই ছুটে আসেন রামপুর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান আল মামুন পাটওয়ারী ও ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সাধারণ আল মামুন লিটু, ইউপি সদস্য আব্দুল খালেক খানসহ বিভিন্ন রাজনৈতিক ও সামাজিক নেতৃবৃন্দ।

পুরো বাড়িতে অগ্নিকান্ডে ক্ষতিগ্রস্তদের আহাজারিতে ভারি হয়ে পুরো এলাকা। সাময়িকভাবে ২ বস্তা চাউলসহ অন্যান্য সামগ্রী প্রদান করেন ইউপি চেয়ারম্যান। এ ব্যাপারে রামপুর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান আল মামুন পাটওয়ারী জানান, আমার সাথে মাননীয় শিক্ষামন্ত্রী আলহাজ্ব ডা: দীপু মনি এমপি ও উপজেলা নির্বাহী অফিসার কানিজ ফাতেমার সাথে কথা হয়েছে। কালকের (রবিবার) মধ্যে টিন, চালসহ অন্যান্য সামগ্রী ক্ষতিগ্রস্তদের মাঝে দেওয়া হবে।

আর পড়তে পারেন