সোমবার, ৪ আগস্ট, ২০২০

কুমিল্লা ইভটিজিংয়ে বাধা দেয়ায় পিতাকে কুপিয়ে জখম

আজকের কুমিল্লা ডট কম :
মে ৭, ২০১৮
news-image

 

স্টাফ রিপোর্টারঃ

ইভটিজিংয়ে বাধা দেয়ার জের ধরে কুমিল্লা জেলার ব্রাহ্মণপাড়া উপজেলার চান্দলা ধলগ্রাম এলাকায় এক পিতাকে কুপিয়ে মারাত্মকভাবে আহত করেছে সন্ত্রাসীরা। ওই পিতা বর্তমানে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে মৃত্যুর সাথে লড়ছে।

এ ব্যাপারে আহতের পিতা বাদী হয়ে ৫ জন নামীয় ও অজ্ঞাত ৬/৭ জনকে আসামি করে থানায় একটি মামলা করেছে। মামলার এজাহার ও অন্যান্য সূত্রে জানা যায়, উপজেলার চান্দলা ধলগ্রাম এলাকার বিল্লাল হোসেনের ছেলে বোরহান উদ্দিন (১৬) এর সঙ্গে গত ৫/৬ মাস পূর্বে এলাকার কিছু বখাটে যুবক তার চাচাত বোনকে ইভটিজিং করার কারণে তাদের মধ্যে কথাকাটাকাটি হয়। এরপর থেকে ওই যুবকরা প্রায়ই বোরহানের সঙ্গে গায়ে পড়ে ঝগড়া করার চেষ্টা করে আসছিল।

এরই জের ধরে গত ২রা মে সকাল ১১টায় চান্দলা ধলগ্রাম আশ্রমের কাট বাগানের নিকট বোরহান পৌঁছামাত্র পূর্ব পরিকল্পনা অনুযায়ী বখাটে যুবকরা তাকে ধরে নিয়ে আশ্রম এর চিতাশাল মাঠে নেবার পর তাকে কিল-ঘুষি ও লাঠি দিয়ে পেটাতে থাকে। এ সময় চান্দলা মধ্যপাড়া গ্রামের কাউছার পারভেজের ছেলে মো. আকাশ (১৮) তার হাতে থাকা ধারালো দা দিয়ে বোরহানের পিতা বিল্লালকে মাথায় কোপ দিয়ে মারাত্মকভাবে আহত করে। আকাশ ও তার সহযোগীদের হামলায় বোরহানের চাচা কাউছারও এ সময় আহত হয়।

তাদের চিৎকারে আশপাশের লোকজন ছুটে এলে হামলাকারীরা দৌড়ে পালিয়ে যায়। মারাত্মকভাবে আহত বিল্লালকে রক্তাক্ত অবস্থায় প্রথমে ব্রাহ্মণপাড়া স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে এরপর কুমিল্লা কুচাইতলী মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল ও অবস্থার অবনতি হলে ওই দিনই রাত ১০টায় তাকে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়।

আর পড়তে পারেন