বুধবার, ১৫ জুলাই, ২০২০

করোনা প্রকোপঃ সৌদিতে ২১ দিনের জন্য কারফিউ জারি

আজকের কুমিল্লা ডট কম :
মার্চ ২৩, ২০২০
news-image

 

সালাহ উদ্দিন সোহেল,সৌদি আরবঃ

প্রাণঘাতি করোনা ভাইরাসে সৌদিআরবে নতুন করে ১১৯ জন আক্রান্ত হওয়ার পর ২১ দিনের কারফিউ জারি করা হয়েছে।

গত শনিবার নতুন আক্রান্ত ৪৮ জন হলেও রবিবারে আক্রান্ত হয়েছে আরো  ১১৯ জন, যা পূর্বের আক্রান্ত চেয়ে দ্বিগুণ হয়ে সৌদি আরবে নতুন রেকর্ড সৃষ্টি করেছে। এ রিপোর্ট লেখা পর্যন্ত সৌদিতে করোনা ভাইরাসে আক্রান্তের সংখ্যা ৫১১ জন।

সৌদি স্বাস্হ্য মন্ত্রনালয় জানায় পূর্বের আক্রান্ত লোকদের সাথে সংস্পর্শের কারনে দিন দিন নতুন আক্রান্তের সংখ্যা বৃদ্ধি পাচ্ছে।

নতুন আক্রান্তদের মধ্যে রিয়াদে ৩৪ জন, মক্কায় ৭২ জন,দাম্মামে ৪ জন,খোবারে ৩ জন, আল হাসায় ৩ জন, কাতিফে ৪ জন, আল কাছিমে ১ জন, আল দাহরানে ১ জন। দিন দিন করোনায় আক্রান্তদের হার বাড়তে থাকায় আজ  সোমবার সন্ধ্যা হতে পরবর্তী ২১ দিনের জন্য সৌদি আরবে কারফিউ িআইন জারি করা হয়েছে।

সৌদি প্রেস এজেন্সি এক বিজ্ঞপ্তিতে জানিয়েছে যে খাদেমুল হারামাইন শরীফাইন সালমান বিন আব্দুল আজিজ কারফিউ জন্য এক ফরমান জারি করেছেন।

এ নির্দেশনার ফলে সন্ধা ৭টা হতে সকাল ৬টা পর্যন্ত বাইরে বের হওয়া নিষিদ্ধ থাকবে। বাদশার এই নির্দেশের প্রেক্ষিতে সৌদি স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয় এ এসময়ে যেসকল সেক্টরের কর্মীরা তাদের পেশাগত কারণে সীমিত চলাচল করতে পারবেন তার একটি বিস্তারিত তালিকা দিয়েছে।

আর তারা হলেন:
১। নিত্য প্রয়োজনীয় দ্রব্যাদি বিক্রির সুপার মার্কেট, ডিপার্টমেন্টাল স্টোর, মাংস, সবজি বিক্রি ও উৎপাদনের সাথে সংশ্লিষ্টগণ।
২। স্বাস্থ্য ও ফার্মেসী খাতে কর্মরতগণ।
৩।গণমাধ্যম কর্মীরা।
৪। খাদ্যদ্রব্য ও চিকিৎসা সামগ্রী আমদানি ও এ জাতীয় পন্য পরিবহণ সংশ্লিষ্ট কর্মীগণ।
৫। অনলাইলে পন্য বিক্রির সাথে সংশ্লিষ্ট কর্মীরা পন্য পৌছে দেয়ার জন্য।
৬। হোটেল, মোটেল ও বোর্ডিং এর কর্মীরা।
৭। পেট্রোল পাম্প ও জরুরী বিদ্যুৎ পরিসেবার সাথে সংশ্লিষ্ট কর্মীরা।
৮। আর্থিক পরিসেবা প্রদানকারী ও জরুরী ইন্স্যুরেন্স সেবা প্রদানকারী কোম্পানির কর্মিরা (নজম সহ)।
৮। টেলিকমিউনিকেশন ও ইন্টার্নেট সেবা প্রদানকারী কোম্পানির কর্মীরা।
৯। শারিকা মিয়াহ (রাষ্ট্রীয় পানি কোম্পানি) এর কর্মীরা।
১০। নিরাপত্তা সংস্থা , স্বাস্থ্য দপ্তর সহ সরকারী পরিসেবা প্রদানকারী যানবাহন চলাচল করতে পারবে।
১১। জরুরী ঔষধ ও খাদ্য সামগ্রী ডেলিভারির যানবাহন চলাচল করতে পারবে।
১২। এসময়ে মুয়াজ্জিনগণ শুধু মসজিদে আজান দেয়ার জন্য মসজিদের উদ্দেশ্যে বের হতে পারবেন।
১৩। কুটনৈতিক মিশনে ও আন্তর্জাতিক বিভিন্ন সংস্থায় কর্মরতরা জরুরী প্রয়োজনে তাদের কর্মস্থলে যেতে পারবেন।

কারফিউ জারির সাথে কঠোর হুশিয়ারি দিয়ে বলেন যারা এ আইন অমান্য করবে তাদের বিরুদ্ধে জেল জরিমানাসহ কঠোর শাস্তির ব্যবস্হা রয়েছে।

আর পড়তে পারেন